ভাগ করে নিন
ভিউজ্
  • অবস্থা সম্পাদনার জন্য উন্মুক্ত

১৯ জেলার ২০ মেলা

রাজ্যের ১৯টি জেলার ২০টি মেলার বর্ণনা করা হয়েছে।

বড়িশার চণ্ডীমেলা
কলকাতাকে মেলার শহর বললে অত্যুক্তি হয় না। বইমেলা, হস্তমেলা, বাণিজ্যমেলা ও আরও নানা মেলায় সে এক হট্টমেলার শহর।
বেগোপাড়ার বড়দিনের মেলা
ভারতবর্ষের মানুষের সঙ্গে খ্রিস্ট ধর্মের পরিচয় পাঁচ-ছশো বছর আগে, ভাস্কো ডা গামার ভারতে আসার মধ্য দিয়ে।
মহিষাদলের রথের মেলা
গ্রামীণ মেলার কথা উঠলেই আজ বাঙালির চোখে যে ছবি ভেসে ওঠে তা হল রথের মেলা।
মুর্শিদাবাদের বেরার মেলা
হাজারদুয়ারি বলুন কিংবা লালবাগ। পাশ দিয়ে বয়ে চলেছে গঙ্গা। আর সেই গঙ্গার দু’পাশে হাজার হাজার লোকের উল্লাসের মাঝে গঙ্গা দিয়ে বয়ে চলে আলোর ভেলা ‘বেরা’।
মকর সংক্রান্তির সাগর মেলা
দক্ষিণ চব্বিশ পরগনার কাকদ্বীপ মহকুমার অন্তর্গত সাগরদ্বীপ দ্বীপ হলেও যথেষ্ট বড়।
মাহেশের রথের মেলা
বাংলা সাহিত্যে মাহেশের রথের উল্লেখ গুনে শেষ করা যাবে না।
রামকেলির মেলা
সম্ভবত ১৫১৫ সালের জুন মাসে শ্রীচৈতন্য গৌড়ের রামকেলি গ্রামে আসেন। গৌড়ের সুলতান হুসেন শাহের মন্ত্রী সাকর মল্লিক ও প্রধান মুনশি দবীর খাস বৈষ্ণব ধর্মে দীক্ষিত হন। পরবর্তী কালে এর দু’জন রূপ গোস্বামী ও সনাতন গোস্বামী নামে প্রসিদ্ধি লাভ করেন।
কোচবিহারের রাসমেলা
কোচবিহার রাসমেলা এই বাংলার শতাব্দী প্রাচীন মেলাগুলির অন্যতম এবং জনপ্রিয়। এই মেলা উত্তরবঙ্গ এবং উত্তর পূর্ব ভারতের সব থেকে বড় মেলা। এই মেলার জন্য কোচবিহারবাসী অন্তর থেকে গর্ব অনুভব করেন, অপেক্ষা করেন বছরভর। এটি কোচবিহারের প্রধান উৎসব।
শান্তিনিকেতনের পৌষ মেলা
যে মেলার কথা না বললে বাংলার মেলা সম্পূর্ণতা পায় না, তা হল শান্তিনিকেতনের পৌষ মেলা। শুধুমাত্র বিশ্বকবির স্মৃতিবিজড়িত বলেই নয় বরং সাহিত্যিক রবীন্দ্রনাথের বাইরে সমাজ সংস্কারক রবীন্দ্রনাথের যে পরিচয়, তা এখানে বিশেষভাবে অনুভূত হয়।
সতীমার দোল মেলা
ন্যাভিগেশন
Back to top